মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪৩০

৩৭৯ পদে জামাই আদর

প্রকাশনার সময়: ২৪ জানুয়ারি ২০২৩, ১৬:৩৩

শ্বশুরবাড়িতে জামাইয়েরা একটু বেশিই যত্নআত্তি পেয়ে থাকেন। সেই থেকেই হয়তো জামাই আদর কথাটি এসেছে কি না, সেটা নিশ্চিত না হওয়া গেলেও ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশে যা হয়েছে, তা যে জামাই আদরে চূড়ান্ত রূপ পেয়েছে তাতে সন্দেহ নেই। উৎসবের দিনে একটি পরিবার বাড়ির জামাইকে ৩৭৯ পদ দিয়ে আপ্যায়ন করেছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সেই ভিডিও এখন রীতিমতো ভাইরাল।

সৌভাগ্যবান ওই জামাতার নাম বৌদ্ধ মুরালিধরন। পেশায় স্থপতি তিনি। মুরালিধরনের বাড়ি ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশের বিশাখাপট্টনামের আসাকাপল্লি শহরে। তার স্ত্রী কুসুমার বাড়ি একই প্রদেশের ইলুরু জেলায়। কুসুমা এমবিএ করছেন। সম্প্রতি মকরসংক্রান্তির উৎসবে শ্বশুরবাড়িতে যান মুরালিধরন। আর তখন ওই বাড়ির লোকজন জামাতাকে চমকে দিতে ভিন্নধর্মী এ পরিকল্পনা করেন।

টুইটারে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, ঘরের মাঝখানে বিশাল একটি টেবিল। বাড়ির নারী সদস্যরা একের পর এক খাবারের বাটি সাজিয়ে রাখছেন। ভিডিওর একপর্যায়ে টেবিলে সাজানো সারি সারি খাবার দেখা যায়। আরেকটি ভিডিওতে খাবারে সাজানো টেবিলের পাশে মুরালিধরন-কুসুমা দম্পতিকে দেখা যায়।

আপলোড করা ভিডিওর ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, জামাতা মুরালিধরনের জন্য কুসুমার পরিবার একটি-দুটি নয়, ৩৭৯টি পদের আয়োজন করেছিল। প্রতিটি পদ ছোট বাটিতে সাজানোর পর কাগজে সেটার নাম লিখে দেওয়া হয়েছিল। শ্বশুরবাড়ির এমন আয়োজনে মুগ্ধ হয়েছেন জামাতা মুরালিধরন।

জানা গেছে, মকরসংক্রান্তির উৎসবে জামাই আদরের এই পরিকল্পনা সপ্তাহখানেক ধরে করেছিল কুসুমার পরিবারের সদস্যরা। সফলও হয়েছেন তারা। এবারের মকরসংক্রান্তির উৎসবটা মুরালিধরনের কাছে স্মরণীয় হয়ে থাকবে। তবে এত এত খাবারের পদে জামাই আদরের ঘটনা এবারই প্রথম নয়। গত বছর ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশের পশ্চিম গোদাভরী জেলার একটি পরিবার ৩৬৫ পদে জামাই আদর করে আলোচনায় এসেছিল।

নয়া শতাব্দী/আরআর

নয়া শতাব্দী ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

এ সম্পর্কিত আরো খবর
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

আমার এলাকার সংবাদ